নার্ভাসনেস কাটানোর উপায়

এখনকার জীবনে উদ্বেগের কমতি নেই। অফিসের কাজের চাপ, পড়াশোনার চাপ, ব্যক্তিগত জীবনেও হাজারটা সমস্যা। এইসব কারণে বেড়েই চলে উদ্বেগ। শুধু‌ কি তাই? রয়েছে আরো অন্য ধরনের উদ্বেগ। ধরুন, আপনাকে দিতে হবে কোনও পরীক্ষা, কিংবা মুখোমুখি হতে হবে কোনও ইন্টারভিউ- এর। সেই সময় টেনশন অনুভব করেন না, এমন মানুষ খুব কম। এই কারণে অনেকেরই পরীক্ষার ফল বা ইন্টারভিউয়ের ফলও খারাপ হয়ে য়ায়। এরকম পরিস্থিতিতে মনে হয়, যদি কোনও উপায়ে কমিয়ে ফেলা যেত উদ্বেগ, তবে ভালই হত। কিন্তু সত্যি এমনটা হতে পারে?


পারে। কিন্তু কীভাবে?


উদ্বেগ কমানোর এই কৌশলটি আপাতদৃষ্টিতে একটু অদ্ভুত মনে হতে পারে। আপনাকে যা করতে হবে তা হল, মুখের ভিতর যে কোনও একটি হাতের বুড়ো আঙুল পুরে দিতে হবে আপনার মুখে। বাচ্চারা যেভাবে আঙুল চোষে অনেকটা সেরকমই ভাবে। অথবা মুখ থেকে কিছুটা দূরেও ধরতে পারেন বুড়ো আঙুলটি। এবার আর কিছুই নয়, জোরে জোরে ফুঁ দিতে থাকুন বুড়ো আঙুলের ডগায় এবং নিঃশ্বাসও নিন মুখ দিয়ে। এরকম মিনিট দু’দুয়েক ফুঁ দিলেই দেখবেন কমে গিয়েছে উদ্বেগ।


শুনতে যতই অদ্ভুত, কিন্তু মনস্তাত্ত্বিকরা বলছেন, আসলে এইভাবে ফুঁ দেওয়ার ফলে একটি বিশেষ পদ্ধতিতে নিঃশ্বাস-প্রশ্বাস চলতে থাকে। এই পদ্ধতিতে নিঃশ্বাস প্রশ্বাস চালালে শরীরের ভেগাস স্নায়ু উদ্দীপিত হয়। এই ভেগাস স্নায়ুর ছড়িয়ে রয়েছে আমাদের সমগ্র শরীর জুড়েই। ভেগাস স্নায়ুর উদ্দীপনের ফলে হৃদযন্ত্রের বেগ হ্রাস পায়, এবং রক্তচাপও হ্রাস হয়। এর জন্য শিথিল হয়ে আসে শরীর, এবং উদ্বেগ ও উত্তেজনা কমে যায়।


বিশ্বাস হচ্ছে না? তাহলে নিজেই যাচাই করে নিন না, এই প্রক্রিয়ার কার্যকারিতা। 

Leave a Reply

%d bloggers like this: