স্নান করার সময় কি কি ভুল আমরা করে থাকি যার জন্যে প্রাণের ক্ষতি হতে পারে?

যুবক যুবতী বয়সে, এমন মানুষ খুব কমই পাওয়া যায় যারা দৈনন্দিন স্নান সম্পর্কে উত্সাহী। কিন্তু এখনও কিছু মানুষ আছে যারা দৈনন্দিন স্নান করতে ভালোবাসেন। স্নান করা আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য নিঃসন্দেহে ভাল, কিন্তু স্নান করার সময়, আমরা এমন অনেকগুলি ভুল করি যা আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য নেতিবাচক।

বিশ্বের বিভিন্ন গবেষণায় এবং গবেষণার মতে, এই ভুলগুলি কেবল আমাদের ত্বকের জন্য ক্ষতিকারক নয়, চুলের জন্যেও ক্ষতিকারক। আমরা এই ভুলগুলির পুনরাবৃত্তি একবার নয়, প্রতিদিন স্নান করার সময় করে চলি। তাই আজ থেকে এগুলি এড়িয়ে চলুন।

১. প্রবল বেগে শাওয়ার চালিয়ে মুখ ধোয়া

ব্রিটিশ জার্নাল অফ ডার্মাটোলজি অনুযায়ী, প্রবল বেগে শাওয়ার ঝরানো জল ত্বক ও চোখের ক্ষতি করতে পারে। আমাদের তাই প্রবল বেগে শাওয়ার না চালিয়ে আস্তে করে চালানো উচিত।।

২. বেশি গরম বা ঠান্ডা জলে স্নান করা

ক্যালিফোর্নিয়া ইউনিভার্সিটির গবেষণার মতে, স্নান করার সময় জলের তাপমাত্রা উষ্ণ হতে হবে। গরম বা ঠান্ডা জল দিয়ে স্নান করলে চুল এবং চামড়ার টিস্যুর ক্ষতি হতে পারে। উপরন্তু, ত্বকে জ্বালা হতে পারে।

৩. দীর্ঘ সময় ধরে স্নান করা

মেরিল্যান্ড মেডিক্যাল সেন্টারের গবেষণার মতে, একটি দীর্ঘ সময় ধরে জনসন করলে চামড়ার আর্দ্রতা কমে যায়, যা চামড়ার শুষ্কতা এনে দেয় এবং তাড়াতাড়ি ত্বক কুঁচকে যায়। সুতরাং দীর্ঘ সময়ের জন্য স্নান করবেন না।

৪. বাথরুমে বডি স্ক্রাবার রাখা

জার্নাল অফ ক্লিনিক্যাল মাইক্রোবায়োলজি অনুযায়ী, ভিজা জিনিসের মধ্যে ব্যাকটেরিয়া দ্রুত বৃদ্ধি পায়। এইভাবে, বাথরুমের ভিজা শরীরের স্ক্রাবারটি রেখে দিলে, ব্যাকটেরিয়াটি বাড়তে থাকে, যা চামড়া এবং শরীরের সংক্রমণের কারণ হতে পারে।

৪. বেশি পরিমানে স্ক্রাবিং

আমেরিকান একাডেমী ডার্মাটোলজি অনুযায়ী, যদি আপনি আপনার শরীরের উপর দীর্ঘ সময়ের জন্য ঘর্ষণ করেন, তবে এটি আপনার শরীরের উপরের স্তরকে ছুলে দিতে পারে এবং এটি থেকে সংক্রমণ হতে পারে।

৫. একটি রাসায়নিক সাবান দিয়ে রোজ স্নান করা

স্কটল্যান্ডের এবারডেন ইউনিভার্সিটির একটি রিপোর্ট অনুযায়ী, ঔষধ বা রাসায়নিক পদার্থগুলি শরীরের সুক্ষ্ম ব্যাকটেরিয়াগুলিকে দূর করে যা সংক্রমণ থেকে ত্বকের রক্ষা করে। সাবান নির্বাচন খুব বুদ্ধি দিয়ে করা উচিত।

৬. শ্যাম্পু করে কন্ডিশনার না লাগানো

ট্রাইচোলজিকাল ইন্টারন্যাশনাল অ্যাসোসিয়েশনের মতে শ্যাম্পু করার পরে কন্ডিশনার প্রয়োগ না করার ফলে চুলে ক্ষতি হতে পারে, চুলের ঔজ্জ্বল্য হ্রাস পায় এবং অন্যান্য বিভ্রান্তি হতে পারে।

৭. ব্যায়ামের পরে দ্রুত স্নান করা

হ্যাম্পশার বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণার মতে, ব্যায়ামের পরে শরীর গরম হয়ে যায়। এই ক্ষেত্রে, ঠান্ডা জল গায়ে ঢাললে স্ট্রোক এবং হার্ট অ্যাটাকও হতে পারে।

৮. তোয়ালে দিয়ে জোরে গা মোছা

আমেরিকান একাডেমী ডার্মাটোলজি অনুযায়ী, এটি ত্বকে এবং চুলের ক্ষতি করে কারণ এতে ত্বক ও চুল পরিষ্কার করার সময় খুব শুষ্ক হয়ে যায়।

৯. স্নানের পরে ময়শ্চারাইসার বা তেল প্রয়োগ না করা

মেরিল্যান্ড গবেষণা ইউনিভার্সিটির মতে স্নানের পরে শরীরে ময়লা হ্রাস হয়। এই অবস্থায়, স্নান করে, তেল বা ময়শ্চারাইজার অবশ্যই মাখা উচিত।

যদি আপনি এই ভুলগুলি আজ অবধি করে এসেছেন, তবে দেরি কিসের? শুধরে ফেলুন ও আপনার বন্ধুদের সাথে এই নিবন্ধটি শেয়ার করতে ভুলবেন না।

Leave a Reply

%d bloggers like this: