জানতে চান আপনি কতটা সুস্থ? করুন একটি স্পুন টেস্ট!

ঘুম থেকে উঠে একেবারে খালি পেটে এই পরীক্ষা করতে হবে। জলও পান করা যাবে না। তাহলে এবার দেখে নিন চামচ দিয়ে এই সহজ পরীক্ষার পদ্ধতি-

১. একটি চামচ নিয়ে তার তলা দিয়ে জিভের উপরে বেশ কিছু ক্ষণ ধরে ঘষতে হবে। যাতে চামচটি লালায় সম্পূর্ণ ভিজে যায়।

২. এবার একটি প্লাস্টিক ব্যাগে ঢুকিয়ে তা সূর্যালোকে রেখে দিন।

৩. ১ মিনিট পর প্লাস্টিক ব্যাগ থেকে চামচটি বের করে নিন।

ফলাফল:

১. চামচে খুব দুর্গন্ধ হলে জানবেন ফুসফুসের সমস্যা হতে পারে।

২. অ্যামোনিয়ার মতো ঝাঁঝালো গন্ধ হলে কিডনির সমস্যা হতে পারে।

৩. মিষ্টি বা কোনও ফলের মতো গন্ধ হলে আপনার ডায়াবেটিসের সম্ভাবনা।

৪. চামচে সাদা দাগ শ্বাসযন্ত্রের কোনও সংক্রমণের ফল হতে পারে।

৫. বেগুনি রঙের দাগ হলে রক্ত চলাচলের সমস্যা দেখা দিতে পারে। রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রা খুব বেশি বেড়ে গেলে বা রক্তে অক্সিজেনের পরিমাণ কমে গেলে এরকম হয়ে থাকে।

৬. হলুদ রঙের দাগ হলে থাইরয়েড গ্রন্থির সমস্যা হতে পারে।

৭. এবং দাগ যদি কমলা রং ধারণ করে তাহলে কিডনির সমস্যায় ভুগতে পারেন। কারণ কিডনির সমস্যা দেখা দিলে রক্তে ক্যারোটিন-সদৃশ উপাদান জমা হতে থাকে। এর ফলেই কমলা রঙের দাগ হয়।

৮. যদি চামচে লেগে থাকা লালা শুকিয়ে যাওয়ার পর কোনও গন্ধ বা কোনরকম দাগ না হয়, তাহলে জানবেন আপনার দেহের ভিতরের অঙ্গ একদম ঠিক আছে।

Leave a Reply

%d bloggers like this: